• মঙ্গলবার, ৯ আগস্ট, ২০২২

তাহলে আমাদের ধর্মীয় স্বাধীনতা কোথায়?

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি :

হিজাব-নিকাব পরিহিত অবস্থায় মহিলাদের সকল সরকারি ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে সেবা নিশ্চিতের দাবিতে মানববন্ধন করেছেন ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রীরা। সোমবার বেলা ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকের সামনে মানববন্ধনটি অনুষ্ঠিত হয়। এসময় হিজাব-নিকাব পরিহিত অবস্থায় জাতীয় পরিচয়পত্র ও ব্যাংক একাউন্ট সহ রাষ্ট্রীয় সকল সুবিধা নিশ্চিত করার দাবি জানায় শিক্ষার্থীরা।
মানববন্ধনে শিক্ষার্থীরা ‘সংবিধানের ৪১ (১) অনুচ্ছেদ অনুসারে পর্দা করা আমার সাংবিধানিক অধিকার’, ‘কান দেখানো ছবি নয়; বায়োমেট্রিকস-এ সব হয়’, ‘বায়োমেট্রিক পদ্ধিতে জাতীয় পরিচয়পত্র কেন নয়?’ সহ বিভিন্ন স্লোগান সংবলিত প্ল্যাকার্ড প্রদর্শন করেন।

এসময় শিক্ষার্থীরা বলেন, আমরা মেয়েরা পর্দা করার কারণে বিভিন্ন ক্ষেত্রে বাঁধার সম্মুখিন হই। চাকরির সাক্ষাৎকারে গেলে আমাদের পর্দা খুলে মুখ দেখাতে হয়। যেটা ধর্মীয় দৃষ্টিকোণ থেকে হারাম। চাকরি বা সরকারি সেবা নিতে যদি আমাদের ধর্মীয় বিধান লঙ্ঘন করতে হয় তাহলে আমাদের ধর্মীয় স্বাধীনতা কোথায়? আমরা কি কোন বাজারের পণ্য যে, চেহারা দেখিয়ে আমাদের যোগ্যতার প্রমাণ করতে হবে। যারা হিজাব-নিকাব পরিধান করে, তাদের জন্য বিকল্প বায়োমেট্রিক পদ্ধতি ব্যবহার করে সকল ক্ষেত্রে অংশগ্রহণের সুযোগ দেয়া হোক।

Print Friendly, PDF & Email