শিরোনাম :

  • বুধবার, ২০ জানুয়ারি, ২০২১

সাম্প্রদায়িক গোলযোগ সৃষ্টি করতে দেশবিরোধীরা ষড়যন্ত্র করছে-আল্লামা কাসেমী

জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ-এর মহাসচিব আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী বলেছেন, দেশে সাম্প্রদায়িক গোলযোগ সৃষ্টি করে বাংলাদেশের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্বকে হুমকির মুখে ঠেলে দিতে গভীর ষড়যন্ত্র চলছে। তাদের পাতানো ফাঁদে কোনভাবেই পা দেওয়া যাবে না। যে কোন মূল্যে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি অটূট রাখতে হবে। পাশাপাশি ষড়যন্ত্রকারী ও তাদের মদদদাতাদের চিহ্নিত করে জাতির কাছে মুখোশ খুলে দিতে হবে এবং এসব দেশবিরোধীদের প্রতিরোধে ব্যাপক গণসচেতনতা তৈরির মাধ্যমে সকলকে ঐক্যবদ্ধ রাখতে হবে।

জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ-এর উদ্যোগে ‘সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টের চক্রান্ত প্রতিরোধে আমাদের করণীয়’ শীর্ষক এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী এসব কথা বলেন।

আজ (১১ নভেম্বর) বুধবার রাজধানী ঢাকার পল্টনস্থ দলীয় কার্যালয়ে সকাল ১০টায় অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেছেন জমিয়তের সহসভাপতি আল্লামা আবদুর রব ইউসুফী।

সভায় আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী আরো বলেন, ষড়যন্ত্রকারীরা আমাদেরকে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের বিরুদ্ধে মাথা গরম করতে চাচ্ছে। কিন্তু আমরা সেই ফাঁদে পা দেব না। আমরা জানি ষড়যন্ত্রকারীদের সংখ্যা নগন্য। এ ছাড়া বাংলাদেশের সকল ধর্ম, বর্ণ ও মতাদর্শের মানুষ মিলে মিশে চলতে অভ্যস্ত। বাংলাদেশের ৯২ ভাগ মানুষ ইসলাম ধর্মে বিশ্বাসী। আর ইসলাম সকল ধর্ম-বর্ণ ও মতাদর্শের মানুষের সাথে মানবিক ও সমাজিক সদাচরণ এবং সম্প্রীতি বজায় রেখে চলার শিক্ষা দিয়ে থাকে।

তিনি বলেন, ষড়যন্ত্রকারীরা ইসলামের বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালাচ্ছে। আমাদের এখন প্রধান কাজ হবে, ইসলামের সম্প্রীতি ও শান্তির বাণীর ব্যাপক প্রচার করা। ইসলামে যে কোন মানুষের ন্যায়বিচার, মানবাধিকার এবং ইনসাফ পাওয়ার ক্ষেত্রে ধর্ম, বর্ণ ও ভাষাগত তারতম্য দিয়ে পার্থক্য করে না। ইসলাম জ্বালাও, পোড়াও, ভাঙচুর সমর্থন করে না। ইসলাম সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির শিক্ষা দেয়। ইসলামের এই বাণীগুলোর ব্যাপক প্রচার করতে হবে এবং সে মতে চলতে হবে। তাহলে সাম্প্রদায়িক সঙ্ঘাত বাঁধিয়ে ফায়দা লুটতে তৎপর দেশবিরোধী গোষ্ঠীর ষড়যন্ত্র নস্যাৎ হয়ে যাবে।

দলের যুগ্মমহাসচিব মাওলানা মঞ্জুরুল ইসলাম আফেন্দীর পরিচালনায় আলোচনায় আরো শরীক ছিলেন- সহসভাপতি মাওলানা জহিরুল হক ভূঁইয়া, মাওলানা উবায়দুল্লাহ ফারুক, মাওলানা জুনায়েদ আল হাবীব, যুগ্মমহাসচিব মাওলানা বাহাউদ্দীন যাকারিয়া, মুফতি মনির হোসাইন কাসেমী, সাংগঠনিক সম্পাদক হাফেজ মাওলানা নাজমুল হাসান, সহসকারী মহাসচিব মুফতি মাসউদুল করীম, মাওলানা সানাউল্লাহ মাহমূদী, অর্থসম্পাদক মুফতি জাকির হোসাইন কাসেমী, সহসাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা বশীর আহমদ, মুফতি নাসির উদ্দীন খান, প্রচার সম্পাদক মাওলানা জয়নুল আবেদীন, কেন্দ্রীয় নেতা মাওলানা সলিম উল্লাহ, মাওলানা তাজুল ইসলাম, মাওলানা সিদ্দিকুল ইসলাম তোফায়েল, মাওলানা নূর মোহাম্মদ, মুফতি জাবের কাসেমী, মাওলানা মাহবুবুল আলম, মাওলানা সোলাইমান প্রমুখ।

Print Friendly, PDF & Email